তাদের গতির কাছে হার মেনেছে বিশ্বসেরা ব্যাটসম্যানরাও!! বিশ্বের সেরা ৫ গতিদানব বোলার!

ক্রিকেট মাঠে বোলারদেরকে পেস এবং স্পিন বোলিং এই দুইয়ে ভাগ করা হয়। স্পিন বোলারদের বোলিংটা যেনো একটু রহস্যময়। তাদের বোলিংয়ে.

ক্রিকেট মাঠে বোলারদেরকে পেস এবং স্পিন বোলিং এই দুইয়ে ভাগ করা হয়। স্পিন বোলারদের বোলিংটা যেনো একটু রহস্যময়। তাদের বোলিংয়ে বিভিন্ন ভ্যারিয়েশন দেখা যায়। তবে পেস বোলারদের ক্ষেত্রে গতিটাই যেনো মুখ্য বিষয় বলে বিবেচিত হয়। পেস বোলিংয়ের গতির সামনে বিশ্বের সেরা ব্যাটসম্যানটিকেও হিমশীম খেতে হয়। ফাস্ট বোলারদের গতির তোপে ব্যাটসম্যানের স্ট্যাম্প উড়ে গেলে নিসঃসন্দেহে সেই ব্যাটসম্যানটি ইতস্তত বোধ করবে স্বাভাবিক। পেস আক্রমণে বিশ্ব ক্রিকেটে গতির দিক দিয়ে রাজত্ব করে গেছেন অনেকে। যাদের বল খেলতে গেলে একটু হলেও ভয়ে থাকতে হতো ব্যাটসম্যানদের। তাদের গতির কাছে হার মানতে হয়েছে বিশ্বের সেরা ব্যাটসম্যানদেরকেও।

ফ্রি-কিক বিডির পাঠকদের জন্য বিশ্বের সেরা ৫ গতির বোলারদের তালিকা দেওয়া হলোঃ-

১. শোয়েব আক্তার— ক্রিকেটে যদি কোনো পেস বোলার ১০০ মাইল গতিতে বল করে তবে সেটি চলে যাবে রেকর্ডের কাতারে। এই কাজটি করা মোটেও সহজ ব্যাপার নয়।

ক্রিকেটের ইতিহাসে অফিশিয়াল ম্যাচে এই কীর্তিটি গড়েছেন কেবল শোয়েব আক্তার। ২০০৩ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের নিক নাইটের বিপক্ষে ১৬১.৩ কি.মি./ঘন্টা গতিতে একটি বল করেছিলেন পাকিস্তানি এই গতিদানব। ক্যারিয়ারের একটা সময় শোয়েব প্রতিনিয়ত ১৫০ কি.মি./ঘন্টা গতিতে বল করে যেতেন।

২. ব্রেট লি— শোয়েব আক্তার থেকে খুব একটা পিছিয়ে নেই অস্ট্রেলিয়ান এই তারকা পেসার। বলা যেতে পারে শোয়েব আক্তারের যোগ্য প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবেই এই তালিকায় তিনি রয়েছেন। ২০০৫ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচে ১৬১.১ কি.মি./ঘন্টা গতিতে বল করেন। ইতিহাসের দ্বিতীয় বোলার হিসেবে তিনি ১০০ মাইল/ ঘন্টার রেকর্ড গড়েন ব্রেট লি। ক্যারিয়ারে তিনিও ১৫০ কি.মি./ঘন্টা গতিতে বল করে যেতেন৷

৩. শন টেইট— ব্রেট লি’র সমানে সমানেই রয়েছেন শন টেইট৷ খেলোয়াড়ি জীবন খুব একটা লম্বা সময় না থাকলেও যতোদিন ছিলো গতি দিয়ে কাঁপিয়ে গেছেন ২২ গজ। ২০১০ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১৬১.১ কি.মি./ঘন্টা গতিতে বল করে এই তালিকায় তিনে অবস্থান করছেন এই পেসার৷

৪.জেফ্রি থমসম — ১৯৭৬ সালে থমসনের গতির ধারের কাছেও যে কোনো বোলার যেতে পারেনি এটা হলফ করে বলা যায়। ১৬০.৬ কি.মি./ঘন্টা গতিতে বল করেছেন অস্ট্রেলিয়াম এই বোলার৷ তবে ধারণা করা যায় সেই যুগে ১৭০ কি.মি./ ঘন্টা গতিতে বল করতেন থমসন। কিন্তু সেকালে মেশিন দিয়ে গতি পরিমাপ করা হতো বলো এই বিষয়টি আড়ালেই থেকে গেছে।

৫.অ্যান্ডি রবার্টস— ওয়েস্ট ইন্ডিজের বোলারদের মধ্যে এই বোলারকেই সেরা গতির বোলার হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া হয়। ১৯৭৫ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ওয়াকা গ্রাউন্ডে ১৫৯.৯ কি.মি./ঘন্টা গতিতে বল করে এ রেকর্ড গড়েন ক্যারিবিয়ান এই পেসার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: